শিক্ষা

West Bengal – রাজ্যে 8 হাজার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধের মুখে, সরকারের অবস্থান স্পষ্ট করলেন শিক্ষামন্ত্রী।

Adv

West Bengal বা পশ্চিমবঙ্গে বন্ধের মুখে কয়েক হাজার স্কুল, সম্প্রতি স্যোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল এই খবর! এই খবর নিয়ে অবশেষে বিবৃতি দিলো রাজ্য সরকার, তথা রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী।
আমরা সকলেই জানি বিদ্যালয় বা School কে আমাদের সমাজে মন্দিরের সমান বলা হয়ে থাকে। কারণ আমাদের দেশের ও দশের ভবিষ্যৎ এখানেই তৈরি হয়ে থাকে।

কিন্তু এখন আমাদের রাজ্যে প্রায় ৮ হাজারের কাছাকাছি স্কুল বন্ধের মুখে? শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতি নিয়ে রাজ্য ,রাজনীতি তোলপাড়, দুর্নীতি মুক্ত নিয়োগের দাবিতে চলছে আন্দোলন, পথ অবরোধ। ঠিক এর মাঝেই চাঞ্চল্লকর তথ্য উঠে এলো এক সরকারি রিপোর্টে।

Ad

West Bengal School Closed News Is Real Or Fake?

ফেসবুক ও একাধিক ডিজিটাল মিডিয়ার কয়েকটি কিছু রিপোর্টে বলা হয়েছে রাজ্যে (West Bengal) 8 হাজার স্কুল (School) বন্ধ হয়ে যাবে। যে রাজ্যে সরকারি ও সরকারি অনুদান প্রাপ্ত স্কুল এ চাকরি করার জন্য এত আন্দোলন হচ্ছে, সেই রাজ্যেই নাকি 8 হাজার স্কুল শুধু মাত্র ছাত্রছাত্রী দের অভবে বন্ধ হয়ে যাবে। কলকাতারও অনেক গুলি স্কুল এই তালিকার অন্তর্ভুক্ত, প্রায় সব জেলার স্কুলই এই তালিকায় রয়েছে।

এর মধ্যে যেমন রয়েছে প্রাক প্রাথমিক, প্রাথমিক স্কুল, তেমনই রয়েছে উচ্চ প্রাথমিক থেকে মাধ্যমিক স্কুল গুলিও। এই তথ্য উঠে এসেছে এক সরকারি রিপোর্টেরই! পশ্চিমবঙ্গে (West Bengal) 8 হাজার 207 টি স্কুলে পড়ুয়ার সংখ্যা এক্কেবারে তলানিতে ঠেকেছে, স্কুল বাড়ি আছে, শিক্ষক আছে, বেঞ্চ, ব্ল্যাক বোর্ড আছে, ক্লাস শুরু ও শেষের ঘণ্টা আছে।

শুধু নেই পড়ুয়া!! রাজ্যের (West Bengal) হাজার হাজার স্কুলে (School) এখন পড়ুয়ার সংখ্যা নেমে গিয়েছে 50 এর নিচে। আর তার মধ্যে 226 টি স্কুলে তো পড়ুয়াই নেই। মনে করা হচ্ছে, সরকারি সূত্রের দাবি , জন্মহার কমে যাওয়া এবং বেসরকারি স্কুলের বাড়বাড়ন্ত, এই পড়ুয়া কমে যাওয়ার কারণ। এইবার এই নিয়ে মুখ খুললেন শিক্ষামন্ত্রী, স্কুল বন্ধ হওয়া নিয়ে ভুল তথ্য দাবি করলেন শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত্য বসু।

বৃহস্পতিবার শিক্ষামন্ত্রী জানলেন স্কুল বন্ধ হয়ে যাবার খবর আসলে সত্যি নয়। রাজ্যে 8 হাজারের উপরে স্কুল পড়ুয়ার সংখ্যা 50 এর কম বলে যে সমীক্ষা সমাজমাধ্যমে ঘুরছে তা শিক্ষা দফতরের (WB Education Department) নয় বলে জানলেন শিক্ষামন্ত্রী। তিনি বললেন, এরকম কোনো তালিকা প্রকাশ করা হয়নি। আধিকারিকভাবে এই ধরণের কোন সিদ্ধান্ত এখনো জানানো হয়নি বা সরকারের তরফে এই ধরণের কোন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি।

এর আগেও শিক্ষামন্ত্রী তৃণমূল ভবনে বসে একথা জানিয়েছেন। তিনি দাবি করেছেন, পুরোটাই গুজব। রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে গুজব ছড়ানো হচ্ছে। সম্প্রতি শিক্ষা দফতের একটি নির্দেশিকা সামাজিক মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। তাতে রাজ্যের (West Bengal) প্রাথমিক ও মাধ্যমিক স্কুল মিলিয়ে ৮,২০৭ স্কুল বন্ধ হতে চলেছে বলে জানা যায়। এর মধ্যে ৬,৬৪৯ টি প্রাথমিক স্কুল।

Holiday (পশ্চিমবঙ্গে ছুটি)

বাকি গুলি জুনিয়র হাই ও হাই স্কুল। জানা যায়, যে সব স্কুলে শিক্ষার্থীর সংখ্যা ৩০ এর কম সেই সব স্কুল বন্ধ করে দিতে চলেছে রাজ্য সরকার (West Bengal Government). এমনকী জেলায় জেলায় ও ব্লকে কোন কোন স্কুল বন্ধ হতে চলেছে তার তালিকাও দেখা যায়। এই নিয়ে সামাজিক মাধ্যমে ব্যাপক চর্চা শুরু হয়।

Monthly Income Scheme – পোস্ট অফিসের সুদের নিয়ম বদল। এই স্কীমে সবচেয়ে বেশি সুদ পাবেন।

এখন প্রশ্ন হলো স্কুল বন্ধের সিদ্ধান্ত নিয়ে সংবাদমাধ্যমে যখন লাগাতার প্রচার হয়েছে তখন কেন কোনও বিবৃতি জারি করেনি শিক্ষা দফতর? না কি সিদ্ধান্ত হয়ে গিয়েছিল, কিন্তু পরিস্থিতি বিরূপ বুঝে আপাতত তা স্থগিত রেখেছে সরকার? প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে, রাজ্যের একাধিক নিউজ চ্যানেলের টক শো তে! ভবিষ্যতে যদি সত্যি এই ধরণের ঘটনা ঘটে রাজ্যে (West Bengal) তাহলে পড়ুয়াদের আরও সমস্যায় পরতে হবে।

শিক্ষক দিবসের দিন রাজ্যের ছাত্র ছাত্রীদের বিনামূল্যে মোবাইল ফোন দেওয়ার সিদ্ধান্ত পশ্চিমবঙ্গ শিক্ষা

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

string(105) ""