চাকরি

Dearness Allowance – রাজ্য সরকারি কর্মীদের বকেয়া DA দেবেন মুখ্যমন্ত্রী। কবে থেকে পাওয়া যাবে?

Adv

পশ্চিমবঙ্গ সরকার সরকারি কর্মীদের মহার্ঘ ভাতা (Dearness Allowance) নিয়ে গড়িমসি করেই চলেছে। কবে পাবে মহার্ঘ ভাতা তা নিয়ে অপেক্ষায় দিন গুনছে সরকারি কর্মীরা (West Bengal Government Employees) তবে তৃণমূল সরকারি কর্মচারি ফ্রেডারেশন এর নেতা প্রতাপ নায়ক বলেন যে, রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী কর্মীদের পক্ষে তিনি কোন দিন বলেননি যে তিনি মহার্ঘ ভাতা দেবেন না। রাজ্যের অর্থনৈতিক সঙ্কটের মধ্যেও তিনি মহার্ঘ ভাতা দিয়েছেন। ‘

Dearness Allowance Hike News.

বৃহস্পতিবার দলের সভা ছিল নেতাজি ইনডোরে। সেখানে উপস্থিত ছিলেন তৃণমূল কংগ্রেস প্রভাবিত সরকারি কর্মচারী ফেডারেশন। সরকারি কর্মীরা ঐদিন আশা করেছিলেন জে হয়তো ঐদিন তাদের মহার্ঘ ভাতা (Dearness Allowance) নিয়ে কোন কথা বলবেন মুখ্যমন্ত্রী। কিন্তু তা নিয়ে কোন কথাই বলেননি তিনি ঐদিন। মুখ্যমন্ত্রী সরকারি কর্মীদের নিয়ে কথা না বলায় সরকারি কর্মচারী ফেডারেশনের নেতা প্রতাপ নায়েক বলেন, মুখ্যমন্ত্রী কোনওদিন বলেননি ডিএ দেবেন না।

Ad

তিনি ডিএ দেবেন। এমনিতেই তিনি সরকারি কর্মীদের পক্ষে একাধিক কাজ করেছেন। তিনি সরকারি কর্মী দরদী মানুষ, ছুটি থেকে শুরু করে মাসের প্রথমেই বেতন দেওয়া সব ব্যবস্থা করেছেন। কিন্তু কেন্দ্রের কাছে রাজ্য সরকার এখনো 1 লক্ষ 15 হাজার কোটি টাকা পায় সেই টাকা কেন্দ্র সরকার এখনো দেয়নি। তাই মুখ্যমন্ত্রী Dearness Allowance দিতে পারছেন না। সেই টাকা কেন্দ্র সরকার দিলেই মহার্ঘ ভাতা নিশ্চই দিয়ে দেবে মুখ্যমন্ত্রী।

সরকারি কর্মীদের স্বার্থে প্রয়োজনে বৈঠকে বসবেন। বকেয়া Dearness Allowance নিয়ে মামলা চলছে আদালতে। আর এদিকে শহিদ মিনারের পাদদেশে মহার্ঘ ভাতা নিয়ে ধর্না চালাচ্ছে সংগ্রামী যৌথ মঞ্চ। সেই সংগঠনের প্রতি প্রতাপ নায়েক পরামর্শ দিয়েছেন যে, আপনারা এসব না করে কেন্দ্র সরকারের কাছে ধরনা দিন। সেখান থেকে বকেয়া টাকা নিয়ে আসুন। তাহলেই ডিএ পেয়ে যাবেন। প্রতাপ নায়েকের এই বক্তব্যকে ঘিরে সমালোচনা করেছেন অনেকে।

সুপ্রিমকোর্টে (Supreme Court) মামলাকারী সংগঠনের ওয়ার্কিং কমিটির প্রেসিডেন্ট সঞ্জীব পাল বলেন, মমতা ব্যানার্জি ক্ষমতায় আসার আগে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন। তার সরকার ক্ষমতায় এলেই বকেয়া ভাতা মিটিয়ে দেবেন। সেই সময় বামেরা ক্ষমতায় ছিল। বামেদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেছিলেন, যারা সরকারি কর্মীদের Dearness Allowance দিতে পারেন না তাদের ক্ষমতায় থাকার আধিকার নেই। তাহলে আজ মুখ্যমন্ত্রী কেনো দিচ্ছেন না?”

Minimum Balance (মিনিমাম ব্যালেন্স)

এদিকে সংগ্রামী যৌথ মঞ্চের ভাস্কর ঘোষ বলেন, যারা কেন্দ্রীয় সরকারের বঞ্চনা ইত্যাদির কথা বলছেন, তাদের উদ্দেশে বলব, রাজ্যের সরকারি কর্মচারীরা কেন ন্যায্য পাওনা থেকে বঞ্চিত হবেন। এক তারিখে বেতন সব রাজ্য দেয়। আমাদের রাজ্যের থেকে ছোটো রাজ্যও ডিএ (Dearness Allowance) দেয় সময় মতো। অথচ এই সরকার তা দিতে পারে না। কারণ, সরকারি কর্মীদের স্বার্থ রক্ষা করা এই সরকারের অভিধান নেই।

PMVVY Scheme – নতুন প্রকল্প আনল কেন্দ্র, প্রতিমাসে টাকা পাওয়া যাবে।

আর যে সব সংগঠন মুখ্যমন্ত্রীর হয়ে সওয়াল করছে তারা আসলে সরকারের স্বার্থ রক্ষাকারী। এদের সঙ্গে সাধারণ সরকারি কর্মীদের কোনও সম্পর্ক নেই। কিন্তু কবে এই বকেয়া Dearness Allowance পাওয়া যাবে সেই নিয়ে এখনো পর্যন্ত কোন সদর্থক উত্তর এখনো পর্যন্ত পাওয়া যায়নি। এবারে সকলের নজর রয়েছে যে কবে সুপ্রিম কোর্টের পক্ষ থেকে এই নিয়ে কি সিদ্ধান্ত জানানো হয়।
Written by Ananya Chakraborty.

Primary TET Exam – টেট পরীক্ষায় কড়া নিয়ম চালু। দুর্নীতি রুখতে বায়োমেট্রিক পদ্ধতি। এবার শুধু

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

string(92) ""