টেক নিউজ

Aadhar PAN – জালিয়াতির কবলে আধার ও প্যান কার্ড, সুরক্ষিত রাখবেন কীভাবে? আপনার কার্ড হ্যাক হয়নি তো?

Adv

ব্যাংক একাউন্ট ওপেন থেকে শুরু করে যেকোনো চাকরির পরীক্ষায় বসার আগের মুহুর্ত, সবেতেই পরিচয়পত্র হিসেবে প্রয়োজন হয় Aadhar PAN. তাছাড়া ব্যাংক একাউন্টে জমা টাকার নির্দিষ্ট সীমা পেরিয়ে গেলে প্রয়োজন হয় প্যান কার্ড। তাই এই দুটিই একজন মানুষের জীবনে গুরুত্বপূর্ণ নথি। তবে বর্তমান সাইবার জালিয়াতির দুনিয়ায় যেভাবে ক্রমশ বিপদে পড়ছেন সাধারণ মানুষ। বিশেষত অনলাইনের মাধ্যমে টাকা লেনদেনের সুবিধা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গেই এই সমস্যা বাড়ছে। প্যান জালিয়াতি করে ক্রেডিট কার্ড ইস্যু করার ঘটনাও নতুন নয়। কিভাবে Aadhar PAN সুরক্ষিত রাখবেন?

কোন কোন উপায়ে Aadhar PAN কার্ড সুরক্ষিত থাকবে?
বর্তমানে পরিচয়পত্র হিসেবে কেবলমাত্র আধার কার্ড নয়, অন্য গুরুত্বপূর্ণ নথিও থাকে। প্রয়োজনে সেগুলি ব্যবহার করতে হবে। তাহলে Aadhar PAN সুরক্ষিত রাখা যাবে।
১) আধার কার্ডের পরিবর্তে কোনো ব্যক্তি ড্রাইভিং লাইসেন্স ব্যবহার করতে পারেন। সেটা যদি না থাকে ভোটার আইডি কার্ড ব্যবহার করতে পারেন। এই নথিগুলি ব্যবহারে ঝুঁকি থাকবে না, তা বলা হচ্ছে না। তবে ব্যবহারে নিরাপত্তা বেশি।

Ad

Aadhar PAN keep safe.

২) সোশ্যাল মিডিয়া বা অনলাইন পোর্টালে নিজের নাম এবং জন্মতারিখ লেখা বন্ধ করতে হবে। এগুলির মাধ্যমে সহজেই প্যান কার্ড ট্র্যাক করা সম্ভব।
৩) আধার ও প্যান কার্ড এমন জায়গায় বা কোনো ব্যক্তিকে নথি হিসেবে দিতে হবে, যিনি বিশ্বস্ত অথবা কোনো নামি কোম্পানিকে নথি হিসেবে দেওয়া যাবে।
৪) আধার কার্ড এবং ব্যাংক অ্যাকাউন্ট ডি-লিংক করতে হবে (সরকারি বাধ্যবাধকতা না থাকলে)।
৫) আজকাল আবার সেকোনো নথিই মোবাইল রাখার প্রবণতা রয়েছে অনেকের। সেক্ষেত্রে ফোনের গ্যালারিতে আধার বা প্যান কার্ডের ছবি না রাখাই শ্রেয়। যদি কখনো ফোন হারিয়ে যায়, নথিগুলি ভুল ব্যক্তির নাগালে চলে আসবে।

আধার কার্ড হোল্ডারদের জন্য বিশেষ সুবিধা প্রদান করছে UIDAI, জানতে ক্লিক করুন।

৬) কোনও অজানা ক্রেডিট কার্ড ইস্যু বা লোন নেওয়া হয়েছে কিনা জানতে হবে।
প্যান কার্ড ভুল ব্যক্তির নাগালে রয়েছে কিনা, তা জানবেন কিভাবে?
টাকা সঞ্চয়ের ক্ষেত্রে প্যান কার্ড বিশেষভাবে ব্যবহার করা হয়ে থাকে। তাই প্যান কার্ডের অপব্যবহার করা হচ্ছে কিনা তা জানতে হবে। এটি জানার সবথেকে ভালো উপায় হল-
১) সিবিল রিপোর্ট চেক। এই রিপোর্টেই যেকোনো ধরণের লোন ও ক্রেডিট কার্ডের বিবরণ বলা থাকে। যদি কোনও লোন নেওয়া হয় বা ক্রেডিট কার্ড ইস্যু করা হয়, তা আপনার জানা নেই, দেরি না করে তা জানার জন্য রিপোর্ট চেক করে কর্তৃপক্ষকে জানাতে হবে।

২) অন্যান্য ক্রেডিট ইনফরমেশন ব্যুরো (পেটিএম, ব্যাংকবাজার বা সিআরআইএফ হাই মার্ক) থেকে রিপোর্ট চেক করতে হবে।
প্যান কার্ড অপব্যবহার করা হলে কী করবেন?
আপনার পুন কার্ডের তথ্য ভুল জায়গায় বা ভুলভাবে ব্যবহার করা হচ্ছে, তা জানার পর আর দেরি না করে রিপোর্ট করতে হবে। তার জন্য–
১) tin nsdl এর অফিশিয়াল ওয়েবসাইট ওপেন করতে হবে। এরপর হোম পেজ ওপেন হলে কাস্টমার কেয়ার বাটনে ক্লিক করতে হবে।

আধার কার্ড এর সুরক্ষা নিয়ে জরুরি ঘোষণা করলো কেন্দ্র, সময় থাকতে সতর্ক হন।

২) ড্রপ ডাউন মেনু দেখা যাবে। সেখান থেকে ‘কমপ্লেন/কোয়্যারি’ অপশনে ক্লিক করতে হবে।
৩) অভিযোগের জন্য আবেদনপত্র স্ক্রিনে দেখা যাবে। আবেদনপত্রটি সঠিকভাবে পূরণ করে ‘Submit’ বাটনে ক্লিক করতে হবে।
এই সংক্রান্ত খবরের নতুন আপডেট সবার আগে পেতে হলে এই ওয়েবপোর্টালটি ফলো করতে ভুলবেন না।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

string(98) ""