গুরুত্বপূর্ণ খবর

Life Certificate – জীবন প্রমাণপত্র নিয়ে বড় আপডেট সরকারের তরফে, উপকৃত হবে সকলে।

Adv

জীবন প্রমাণপত্র বা Life Certificate নিয়ে এতদিন পর্যন্ত কেউ ওতটা ভ্রুক্ষেপ করেননি। কিন্তু এখন যতদিন যাচ্ছে ততই এই প্রমানপত্রের গ্রহণ যোগ্যতা বেড়েই চলেছে। আর এই কারণের জন্য সকলে এবারে এই নথি নিয়ে সকলে এবারে সচেতন হয়েছে। কিন্তু বেশি করে সকল পেনশনভোগীরা (Pensioners) এই নিয়ে বেশি তথ্য সংগ্রহ করছে। নভেম্বর মাস প্রায় শেষ হতে চলল। আর এই মাসেই সব পেনশনভোগীদের লাইফ সার্টিফিকেট জমা দিতে হয়। লাইফ সার্টিফিকেট যদি জমা না দেওয়া হয় তাহলে পরের মাস থেকে আর পেনশন পাবেন না।

Life Certificate New Update By Government.

প্রসঙ্গত, প্রতি বছরের অক্টোবর ও নভেম্বর মাসে Life Certificate বা জীবন শংসাপত্র জমা করতে হয়। কারন এটি তাদের প্রমান বেঁচে থাকার। তাই প্রত্যেক বছর এটি জমা করতে হয়। কিন্তু এই লাইফ সার্টিফিকেট জমা দেওয়া বয়স্ক মানুষদের পক্ষে খুব অসুবিধা হয়ে দাঁড়ায় কারন তাদের ব্যাংকে গিয়ে ঘন্টার পর ঘন্টা দাঁড়িয়ে থাক খুব অসুবিধা হয়।

Ad

তাই এই সব প্রবীন নাগরিক (Senior Citizen) যাদের 60 বছরের বেশি বয়স তাদের জন্যে 1 লা অক্টোবর থেকে নতুন নিয়ম চালু করা হয়েছে। এখন এইসব প্রবীন নাগরিকরা বাড়িতে বসেই Life Certificate জমা দিতে পারবে। এই লাইফ সার্টিফিকেট জমা করার পদ্ধতি আছে জেনে নিন এই পদ্ধতি গুলো। নভেম্বর মাসে প্রায় বেশিরভাগ পেনশনভোগিরা লাইফ সার্টিফিকেট জমা করে দিয়েছে।

কেন্দ্র সরকারের (Central Government) পেনশনভোগীর সংখ্যা প্রায় 79.76 লক্ষ। এর পাশাপাশি রাজ্য সরকার (State Government) এবং অন্যান্য সংস্থার পেনশনভোগীরাও রয়েছেন ৷ তবে এখনো অনেকে Life Certificate জমা করেননি। তাদের আর চিন্ত নেই তারা বাড়িতে বসেই কাজটি সেরে ফেলতে পারবেন। জেনে নিন উপায় গুলো। লাইফ সার্টিফিকেট জমা দেবার উপায়।

ফেস অথেন্টিকেশন – Life Certificate জমা দেবার জন্য সরকার ফেস অথেন্টিকেশন পদ্ধতি চালু করেছেন। অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোন ব্যবহার করে জীবন প্রমাণপত্র জমা দিতে পারবেন ৷ ডিজিটাল লাইফ সার্টিফিকেট একটি বায়োমেট্রিক এনাবেল্ড ডিজিটাল পরিষেবা যা পেনশনভোগীদের জন্য ডিজাইন করা হয়েছে ৷ এই কাজটি করার জন্য Google Play Store থেকে আধার ফেস আইডি ডাউনলোড করতে হবে নিজের ফোনে। জীবন প্রমান অ্যাপ্লিকেশন ও ডাউনলোড করতে হবে।

Post Payment Bank : Indian Post Payment Bank এর ওয়েবসাইট এর মাধ্যমে Life Certificate জমা করার জন্যে আবেদন করতে পারবেন। এরপর পোস্টম্যান আপনার বাড়িতে এসে সার্টিফিকেট জমা নিয়ে নেবে। ২০২০ সালে পোস্টম্যানের মাধ্যমে ডোর স্টেপ পরিষেবা চালু করা হয়েছিল ৷ মোবাইলের সাহায্যে এই সুবিধা পেতে চাইলে Post Info App ডাউনলোড করতে পারবেন ৷ পেনশনভোগীদের আধার নম্বর, মোবাইল নম্বর, ব্যাংক বা ডাকঘর একাউন্টের নম্বর ও পিপিও নম্বর দিতে হবে।

DA Hike (বকেয়া ডিএ বৃদ্ধি)

জীবন প্রমান পোর্টাল : এই জীবন প্রমান পোর্টাল এর মাধ্যমে Life Certificate জমা করতে পারবেন। এর জন্য জীবন প্রমান অ্যাপ্লিকেশনটি ডাউনলোড করতে হবে। এছাড়া ফিঙ্গার প্রিন্ট জমা করতে হলে UIDAI এর টুল ব্যবহার করতে পারবেন ৷ ফিঙ্গার প্রিন্ট রিডারকে স্মার্টফোনের সঙ্গে কানেক্ট করার জন্য ওটিপি কেবলের ব্যবহার করতে হবে ৷

PM Kisan – প্রধানমন্ত্রী কিষান যোজনার টাকা একাউন্টে কবে ঢুকবে? তারিখ নিয়ে ইঙ্গিত পাওয়া গেল।

Doorstep Banking : যে সব পেনশনভোগীর বেশি করে বয়স্ক ও অসুস্থ মানুষরা ব্যাংকে যেতে পারছেননা তার এই পদ্ধতিতে Life Certificate জমা করতে পারবেন। এই পদ্ধতিতে ব্যাংক এর আধিকারিকরা বাড়িতে গিয়ে পেনশনভোগী জীবিত আছেন কিনা তা যাচাই করে আসবেন। 70 এর বেশি বয়সীদের জন্য এই পদ্ধতি চালু করেছেন স্টেট ব্যাংক অফ ইন্ডিয়া। এর জন্য অবশ্য KYC থাকা জরুরি এবং মোবাইল নম্বর রেজিস্টার্ড থাকতে হবে ৷
Written by Ananya Chakraborty.

Bank Holidays – ডিসেম্বর মাসে মোট 18 দিন ব্যাংক বন্ধ থাকবে। চলেছে! কোন কোন দিন ছুটি

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

string(97) ""