প্রকল্প

Ration Card – চলতি মাসে রেশনের নিয়মে বদল, কার্ড পিছু কত কিলো চাল ও গম পাবেন কমলো না বাড়ল?

Adv

Ration Card থাকলে প্রতি মাসেই পাওয়া যায় খাদ্যসামগ্রী। কিন্তু রেশন কার্ডে ভুলভ্রান্তি থাকলে নিয়ম অনুসারে পাওয়া যায় রেশন। তবে এবার রেশন কার্ডধারীদের জন্য সুখবর। এ মাসে কত কিলো করে রেশন মিলবে তা জানেন কি? চলুন তাহলে জেনে নেওয়া যাক। আর্থিক দিক থেকে পিছিয়ে পড়া দেশের ৮০ কোটি জনগণের জন্য বিনামূল্যে রেশন প্রদানের জন্য প্রধানমন্ত্রী গরিব কল্যাণ যোজনার চালু করা হয়েছিল।

Ration Card এ কি কি পাবেন দেখুন।

বিশেষত লকডাউনের সময় এই যোজনার চালু হয়েছিল। প্রতি ৩ মাস অন্তর অন্তর এই যোজনার মেয়াদ বাড়ানো হয়। বর্তমানে কেন্দ্রীয় বাজেট পেশের পর এই সময়সীমা আরো ১ বছর বাড়ানো হয়েছে। পূর্বে Ration Card এ তিনটি ক্যাটাগরি ছিল। অন্ত্যোদয়, এপিএল এবং বিপিএল। বর্তমান ডিজিটাল ইন্ডিয়ায় Ration Card এর মোট ৫ টি ক্যাটাগরি রয়েছে। AAY, SPHH, PHH, RKSY-I, RKSY-II.

Ad

রেশন কার্ড থাকলেই বিনামূল্যে মিলবে পেট্রোল? কোথায় ও কি করতে হবে জেনে নিন।

কোন ক্যাটাগরীর Ration Card এ কত কিলো খাদ্যসামগ্রী পাওয়া যাবে?
রাজ্য সরকারের খাদ্য দপ্তরের তরফে নির্দেশিকা দেওয়া হয়েছে,
১) অন্ত্যোদয় অন্নযোজনা অর্থাৎ AAY কার্ডে পরিবার পিছু মাসে বিনামূল্যে ২১ কেজি চাল, ১৩ কেজি ৩০০ গ্রাম আটা বা ১৪ কেজি গম পাবেন। সঙ্গে প্রতি কেজিতে ১৩.৫০ টাকা দরে চিনি কিনতে হবে।

২) PHH কার্ড থাকলে মাথাপিছু ৩ কেজি করে চাল এবং ১ কেজি ৯০০ গ্রাম করে আটা বা ২ কেজি করে গম পাওয়া যাবে।
৩) SPHH কার্ডের ব্যক্তিরাও PHH কার্ডের সমান হারেই খাদ্যসামগ্রী পাবেন।
৪) RKSY-1 কার্ডধারীরা মাথাপিছু ৫ কেজি করে চাল পাবেন।

৫) RKSY-2 কার্ড থাকলে পরিবারের সদস্যরা অর্থাৎ মাথাপিছু ২ কিলো করে চাল পাবেন।
যদিও রেশন কার্ডের সঙ্গে আধার কার্ড লিংক করানো বাধ্যতামূলক। এই কাজ না করলে পাওয়া যাবে না রেশন। তাছাড়া কার্ডে কোনো ভুল তথ্য রয়েছে, তা জানা সত্বেও সময়ের অভাবে ঠিক করাতে পারছেন না এমন অনেকেই রয়েছেন। তাহলে তারা রেশন পাবেন না। প্রাপ্যর তুলনায় কম রেশন দিলে কি করবেন?

প্রধানমন্ত্রীর এই প্রকল্পের টাকা আপনার অ্যাকাউণ্টে ঢুকেছে? দেখে নিন এই পদ্ধতিতে।

অনেক সময়ই অভিযোগ উঠে আসে প্রাপ্যের তুলনায় রেশন ডিলাররা গ্রাহকদের কম রেশন দিচ্ছেন। তাহলে কি করবেন? রেশন ডিলাররা গ্রাহকদের প্রাপ্যের তুলনায় কম সামগ্রী দিলে গ্রাহকেরা 1967 নম্বরে ফোন করতে পারবেন কিংবা helpdesk.wbfood.in –এ অভিযোগ জানাতে পারবেন।
এই সংক্রান্ত খবরের নতুন আপডেট সবার আগে পেতে হলে এই ওয়েবপোর্টালটি ফলো করতে ভুলবেন না।

Related Articles

2 Comments

  1. আবার কোরোনা আসুক তখন দেখা যাবে, এবার জিনিষপত্রের দামটা কমাও আর লোকাল ট্রেনের ভাড়া বৃদ্ধির নাম করে ডাকাতি করা বন্ধ কর ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

string(97) ""