অর্থনীতি

Home Loan – স্বপ্নের বাড়ি বানানো আরো সহজ, RBI এর নয়া সিদ্ধন্তে স্বস্তি পেলো সাধারণ মানুষ।

Adv

আপনারও কি Home Loan চলছে? চাকরি বা ব্যবসা বা অন্যান্য কাজের মাধ্যমে পরিশ্রম করে অর্থ উপার্জন করে থাকেন সকলেই। ইচ্ছে থাকে সুখে শান্তিতে ভবিষ্যত জীবন যাপন করবেন। নিজের একটা স্বপ্নের বাড়ি হবে। কিন্তু সেই স্বপ্ন পূরণ করার সাধ্য সকলের থাকে না। যদিও এখন সবকিছুই লোন বা ইএমআর এর মাধ্যমে কেনা সম্ভব। যা একদিকে এযেমন সাধারণ মানুষের জন্য সুবিধা। তার মাঝে রয়েছে কিছু অসুবিধাও। সেই সমস্যা থেকে গ্রাহকেরা যাতে স্বস্তি পায়, তাইজন্য রিজার্ভ ব্যাংক অফ ইন্ডিয়ার তরফে নেওয়া হল একটি নয়া সিদ্ধান্ত।

Home Loan নিতে হলে এই বিশেষ নিয়ম মানতেই হবে, জেনে নিন।

বিশেষত, নিজের স্বপ্নের বাড়ি বা ফ্ল্যাট বা জমি কেনার জন্য অনেকেই ব্যাংকের কাছে Home Loan বা গৃহ ঋণের জন্য আবেদন জানিয়ে থাকেন। সেটি পাওয়ার পর নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে টাকা ফেরত দিতে হয়। তবে তার আগে একাউন্ট হোল্ডারদের নিজের কোনো জমি বা বাড়ি থাকলে তা মডগেজ বা বন্ধক রাখতে হয়। নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে টাকা ফেরত না দেওয়া হলে, সেই জমি বা বাড়ি ব্যাংক কর্তৃপক্ষের তরফে আইনি মতে দখল করা হয়।

Ad

তবে সময়ের মধ্যে Home Loan লোনের টাকা ফেরত দেওয়া হলেও অনেক গ্রাহক এই বিশেষ সমস্যায় পড়েন। গ্রাহকদের সেই সমস্যা থেকে রেহাই দিতেই নয়া সিদ্ধান্ত RBI এর। ব্যাংক থেকে টাকা লোন বা ঋণ নেওয়ার সময় জমি বা বাড়ির কাগজপত্র ব্যাংকের কাছেই জমা থাকে। তবে অনেক ক্ষেত্রেই জানা গিয়েছে, সেই সকল কাগজপত্র ব্যাংক কর্তৃপক্ষ হারিয়ে ফেলেছে। সেই পরিস্থিতিতে চরম ভোগান্তির শিকার হতে হয় ঋণগ্রহীতাদের।

আজই মুক্তি পাচ্ছে আদিপুরুষ, প্রথম দিনেই 8 কোটির ব্যবসা! কোন হলে বিশেষ সুবিধা?

এই নিয়ে RBI এর কী সিদ্ধান্ত?
নয়া সিদ্ধান্ত অনুসারে, ঋণগ্রহীতাদের বাড়ির কাগজপত্র হারিয়ে ফেলা হলে সেই ব্যাংক কর্তৃপক্ষকে ক্ষতিপূরণ দিতে হবে। যদিও RBI এই সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে উচ্চ পর্যায়ের কমিটির সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছিল। ওই কমিটির সিদ্ধান্ত গ্রহণ করার পর RBI জানিয়েছে, কোনো ঋণগ্রহীতা এইরকম সমস্যার সম্মুখীন হলে সংশ্লিষ্ট ব্যাংক কর্তৃপক্ষকে তার ক্ষতিপূরণ বা জরিমানা দিতে হবে।

তবে এই নয়া সিদ্ধান্ত কার্যকর করার আগে আগামী ৭ জুলাই পর্যন্ত সুপারিশের বিষয়ে সংশ্লিষ্টদের মতামত জানতে চাওয়া হয়েছে। তাছাড়া কোন ঋণগ্রহীতা সকল ঋণ শোধ করার পরই ব্যাংক কর্তৃপক্ষকে নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে একাউন্ট হোল্ডারকে সমস্ত নথিপত্র ফেরত দিতে হবে। অর্থাৎ লোনের জন্য ব্যক্তি আগে যেসব নথিপত্র জমা রেখেছিলো ব্যাংকের কাছে।

চাকরি না করেও প্রতিমাসে 50,000 টাকা পেনশন, সরকারের নতুন প্রকল্প সম্পর্কে জেনে নিন।

ব্যাংক কর্তৃপক্ষ সেগুলি দিতে দেরি করলে বা নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে ফেরত না দিলে, ওই ব্যাংক কর্তৃপক্ষকে জরিমানা দিতে হবে।
এই সংক্রান্ত খবরের নতুন আপডেট সবার আগে পেতে হলে এই ওয়েবপোর্টালটি ফলো করতে ভুলবেন না।
Written by Manika Basak.

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

string(105) ""