চাকরি

উচ্চমাধ্যমিক পাশ যোগ্যতায় ৪৫০০ শূন্যপদে ডাটা এন্ট্রি অপারেটর পদে কর্মী নিয়োগ

Adv

পশ্চিমবঙ্গ সহ সমগ্র ভারতের অন্যান্য রাজ্যগুলির চাকরিপ্রার্থীদের মধ্যে সরকারি চাকরি নিয়ে অনুসন্ধিৎসার শেষ নেই। আর তাই ভারতজুড়ে যেখানে সরকারি চাকরি নিয়ে নানারকম বিতর্ক, জল্পনা কিংবা গুঞ্জনের অন্ত নেই, সেখানে অনেক চাকরিপ্রার্থীরাই এখনও পর্যন্ত সরকারি চাকরির অপেক্ষায় বসে রয়েছেন। আর আজ সেই সমস্ত চাকরিপ্রার্থীদের জন্য রয়েছেন এক দারুণ সুখবর। কেন্দ্রীয় সরকারের তরফে বহু সংখ্যক শূন্যপদে চাকরিপ্রার্থীদের নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি জারি করা হলো। আর এক্ষেত্রে সবথেকে আকর্ষণীয় বিষয়টি হলো কেবলমাত্র উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হলে চাকরিপ্রার্থীরা এই শূন্যপদগুলিতে আবেদনের সুযোগ পাবেন।

(ক) পদের নাম:- কেন্দ্রীয় সরকারের তরফে প্রকাশিত বিজ্ঞপ্তি অনুসারে জানানো হয়েছে যে, লোয়ার ডিভিশন ক্লার্ক/ জুনিয়র সেক্রেটারিয়েট অ্যাসিস্ট্যান্ট, ডাটা এন্ট্রি অপারেটর, ডাটা এন্ট্রি অপারেটর (গ্রেড-এ) এই তিনটি পদে চাকরিপ্রার্থীদের নিয়োগ করা হবে।

Ad

কেওয়াইসির দিন শেষ এবার ব্যাঙ্কে বই থাকলেই করতে হবে রি-কেওয়াইসি। নাহলে বন্ধ হবে ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট

শূন্যপদের সংখ্যা:- অফিসিয়াল নোটিফিকেশন অনুসারে জানা গিয়েছে যে, ৪৫০০ শূন্যপদে চাকরিপ্রার্থীদের নিয়োগ করা হবে।
আবেদনের ক্ষেত্রে আবশ্যিক যোগ্যতা:-
১. এই শূন্যপদগুলিতে আবেদনের ক্ষেত্রে চাকরিপ্রার্থীদের সরকারের তরফে স্বীকৃত যেকোনো বোর্ডের অধীনস্থ বিদ্যালয় থেকে উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হতে হবে। এক্ষেত্রে আর্টস, সায়েন্স কিংবা কমার্স যেকোনো বিষয় নিয়ে উত্তীর্ণ হলেই চাকরিপ্রার্থীরা শূন্যপদগুলির জন্য আবেদন জানাতে পারবেন।

এরকম আরো গুরুত্বপূর্ণ তথ্য সবার আগে পেতে যুক্ত হন আমাদের টেলিগ্রাম গ্রুপে – Link

২. চাকরির জন্য আবেদনের ক্ষেত্রে চাকরিপ্রার্থীরা বয়স অবশ্যই ১৮ বছর থেকে ২৭ বছরের মধ্যে হতে হবে। আবেদনকারী চাকরিপ্রার্থীদের বয়স ১লা জানুয়ারি,২০২২ তারিখ অনুসারে হিসেব করা হবে। সরকারি নিয়ম অনুসারে তপশিলি জাতি এবং উপজাতিভুক্ত চাকরিপ্রার্থীরা বয়সের ক্ষেত্রে ৫ বছরের ছাড় পাবেন এবং ওবিসি সম্প্রদায়ভুক্ত চাকরিপ্রার্থীরা বয়সের ক্ষেত্রে ৩ বছরের ছাড় পাবেন। অন্যদিকে, বিশেষভাবে সক্ষম চাকরিপ্রার্থীরা জেনারেল সম্প্রদায়ভুক্ত হলে বয়সের ক্ষেত্রে ১০ বছরে ছাড় পাবেন। তবে এই শূন্যপদগুলিতে আবেদনের ক্ষেত্রে বিশেষভাবে সক্ষম চাকরি প্রার্থীরা তপশিলি জাতি ও উপজাতি ভুক্ত হলে বয়সের ক্ষেত্রে ১৫ বছরের ছাড় পাবেন এবং ওবিসি সম্প্রদায়ভুক্ত চাকরিপ্রার্থীরা বয়সের ক্ষেত্রে ১৩ বছরের ছাড় পাবেন।

এর পাশাপাশি এক্স-সার্ভিসম্যান ক্যাটাগরির যেসমস্ত চাকরিপ্রার্থীরা রয়েছে তারা বয়সের ক্ষেত্রে ৩ বছরের ছাড় পাবেন। এমনকী এক্স-সার্ভিসম্যান যদি প্রতিবন্ধী হন তবে তিনি জেনারেল সম্প্রদায়ভুক্ত হলে বয়সের ক্ষেত্রে ৩ বছরের ছাড় পাবেন এবং তিনি তপশিলি জাতি ও উপজাতিভুক্ত হলে বয়সের ক্ষেত্রে ৮ বছরের ছাড় পাবেন। এছাড়াও বিধবা মহিলা, বিবাহ বিচ্ছিন্ন অথবা ডিভোর্স প্রাপ্ত মহিলা সহ অবিবাহিত মহিলাদের এই পদগুলিতে আবেদনের ক্ষেত্রে বয়সের ঊর্ধ্বসীমা ৩৫ বছর পর্যন্ত নির্ধারণ করা হয়েছে। অন্যদিকে, এই সমস্ত মহিলারা যদি তপশিলি জাতি এবং উপজাতিভুক্ত হন তবে তারা ৪০ বছর বয়স পর্যন্ত এই শূন্যপদগুলিতে আবেদন জানাতে পারবেন। এমনকী কেন্দ্রীয় সরকারের অধীনে যেসমস্ত কর্মচারীরা ৩ বছরের বেশি সময় ধরে কাজ করছেন তারাও এই শূন্যপদগুলির জন্য আবেদন জানাতে পারবেন। এক্ষেত্রে কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মী জেনারেল সম্প্রদায়ভুক্ত হলে আবেদন জানানোর ক্ষেত্রে তাদের বয়সের ঊর্ধ্বসীমা ৪০ বছর এবং তপশিলি জাতি ও উপজাতিভুক্ত প্রার্থীদের ক্ষেত্রে বয়সের ঊর্ধ্বসীমা ৪৫ বছর নির্ধারণ করা হয়েছে।

• বেতন:- অফিসিয়াল বিজ্ঞপ্তি অনুসারে, লোয়ার ডিভিশন ক্লার্ক/ জুনিয়র সেক্রেটারিয়েট অ্যাসিস্ট্যান্ট পদে কর্মরত কর্মীদের ১৯,৯০০ টাকা থেকে শুরু করে ৬৩,২০০ টাকা পর্যন্ত বেতন দেওয়া হবে। ডাটা এন্ট্রি অপারেটর পদে কর্মরত কর্মীরা প্রতি মাসে ২৫,৫০০ টাকা থেকে শুরু করে ৮১,১০০ টাকা পর্যন্ত বেতন পাবেন। অন্যদিকে, ডাটা এন্ট্রি অপারেটর, গ্রেড-এ পদে কর্মরত কর্মীরা প্রতি মাসে ২৫ হাজার ৫০০ টাকা থেকে ৮১ হাজার ১০০ টাকা বেতন পাবেন।

• আবেদনের প্রক্রিয়া:- চাকরিপ্রার্থীরা স্টাফ সিলেকশন কমিশনের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট https://ssc.nic.in থেকে বাড়িতে বসেই অনলাইন এর মাধ্যমে উপরোক্ত শূন্য পদগুলির জন্য আবেদনের প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে পারবেন। এক্ষেত্রে প্রথমেই আপনাকে স্টাফ সিলেকশন কমিশনের অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে গিয়ে রেজিস্ট্রেশনের প্রক্রিয়াটি সম্পন্ন করতে হবে। রেজিস্ট্রেশনে প্রক্রিয়াটি সম্পন্ন হলে রেজিস্ট্রেশন নম্বর এবং পাসওয়ার্ড-এর মাধ্যমে আপনাকে লগইন করতে হবে। এরপর আপনার সামনে আবেদনের জন্য প্রয়োজনীয় ফর্মটি চলে আসবে। ওই ফর্মটি সঠিকভাবে পূরণ করে সমস্ত প্রয়োজনীয় নথিগুলি সঠিকভাবে আপলোড করে আবেদন ফি জমা দিতে হবে। এরপর Submit অপশনে ক্লিক করলেই আবেদনের প্রক্রিয়াটি সম্পন্ন হবে।

• আবেদনের ক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় নথি:-
১. আবেদনকারী সদ্য তোলা রঙিন পাসপোর্ট সাইজের ফটোগ্রাফ।
২. আবেদনকারীর স্বাক্ষর।

• আবেদনের জন্য প্রয়োজনীয় ফি:-
উপরোক্ত সমস্ত পদগুলির ক্ষেত্রে ১০০ টাকা করে আবেদন ফি জমা দিতে হবে তবে মহিলা প্রার্থী, তপশিলি জাতি ও উপজাতিভুক্ত প্রার্থী, প্রতিবন্ধী প্রার্থী এবং যেসমস্ত এক্স সার্ভিসম্যানদের রিজার্ভেশন রয়েছে তাদের কোনোরূপ ফি জমা করতে হবে না।

• আবেদনের শেষ তারিখ:-
চলতি মাসের অর্থাৎ ডিসেম্বর মাসে ৬ তারিখে এই শূন্যপদগুলির জন্য আবেদনের প্রক্রিয়া কার্যকরী করা হয়েছে এবং তা চলবে আগামী বছর অর্থাৎ ২০২৩ সালের জানুয়ারি মাসের ৪ তারিখ পর্যন্ত।

• অফিসিয়াল নোটিফিকেশন:- Link

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

string(107) ""