চাকরি

TET Recruitment – ‘ভালভাবে দুর্নীতি প্রমাণ করা সম্ভব’, 2014 টেট উত্তীর্ণদের নম্বরের তালিকা প্রকাশের পর দাবি আইনজীবীর।

Adv

TET Recruitment নিয়ে তথ্যের গরমিল এর আগেও উঠে এসেছিলো। মামলা আদালতে এখনও বিচারাধীন। আবারও টেট নিয়োগের ক্ষেত্রে দুর্নীতি প্রসঙ্গে নয়া দাবি করা হল। প্রসঙ্গত, হাইকোর্টের নির্দেশে অবশেষে ২০১৪ সালের টেট উত্তীর্ণদের ব্রেক আপ নম্বর সহ তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। মঙ্গলবার প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের তরফে সেই তালিকা প্রকাশের পরই বড়সড় বেনিয়মের দাবি জানালেন আইনজীবী তরুণজ্যোতি তিওয়ারি। এর আগেও ২০১৪ সালের বিজ্ঞপ্তির উপর ভিত্তি করেই ২০১৬ সালে নিয়োগ করা হয়েছিল।

TET Recruitment এর ‘ভালভাবে দুর্নীতি প্রমাণ করা সম্ভব’, 2014 টেট উত্তীর্ণদের নম্বরের তালিকা প্রকাশের পর দাবি আইনজীবীর।

তবে বর্তমানে পর্ষদের তরফে তালিকা প্রকাশের পরে আবারও দুর্নীতির সম্ভাবনার দাবি করা হল। এর জেরে নাকি টেট প্রার্থীরা মামলাও করতে পারবেন। ২০১৬ সালের টেট নিয়োগ সংক্রান্ত একটি মামলায় হাইকোর্টের সিঙ্গল বেঞ্চের বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায় ৩২ হাজার চাকরি বাতিলের নির্দেশ দিয়েছিলেন। বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ের নির্দেশে পুরো প্যানেলটাই বাতিল হওয়ার মুখে ছিল।

Ad

36000 শিক্ষকের চাকরি বাতিল, কোন শর্তে চাকরি বাঁচতে পারে?

এর আগে কখনো এতো সংখ্যক চাকরি বাতিল হয়নি। কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি সুব্রত তালুকদার এবং বিচারপতি সুপ্রতিম ভট্টাচার্যের ডিভিশন বেঞ্চ সিঙ্গেল বেঞ্চের সেই নির্দেশে অন্তর্বর্তী স্থগিতাদেশ দিয়েছিলো। তবে অন্যান্য ক্ষেত্রে সিঙ্গল বেঞ্চের নির্দেশ বহাল রাখা হয়। ডিভিশন বেঞ্চের নির্দেশ অনুসারে, আগামী সেপ্টেম্বর মাস বা আদালতের পরবর্তী নির্দেশ না পাওয়া পর্যন্ত TET Recruitment এর মামলায় চাকরি বাতিলের ওপর স্থগিতাদেশ কার্যকর থাকবে।

সেই সময় চাকরি বাতিল নিয়ে বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায় নির্দেশ দেন, চাকরি বাতিল হওয়া শিক্ষকেরা আপাতত ৪ মাস স্কুলে যেতে পারবেন। পাশাপাশি পার্শ্বশিক্ষকদের বেতন কাঠামো অনুসারে তারা বেতন পাবেন। ডিভিশন বেঞ্চের তরফে এই নির্দেশও দেওয়া হয়েছিল, নিয়োগ প্রক্রিয়া শুরু সংক্রান্ত বিষয়ে বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ের নির্দেশ মেনে চলতে হবে।

তবে সেই সকল শিক্ষক শিক্ষিকাদের আবারও ইন্টারভিউতে অংশ নেওয়ার ঘোষণা করা হয়েছে।
মঙ্গলবার প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের তরফে ২০১৪ সালের টেট উত্তীর্ণদের ব্রেক আপ নম্বর সহ তালিকা প্রকাশের পর নম্বরের গরমিল থাকার প্রশ্ন তোলেন আইনজীবী তরুণজ্যোতি। সংবাদ মাধ্যম সূত্রে খবর, এদিন ট্যুইট করে তিনি জানান, প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদকে জেলাভিত্তিক তালিকা প্রকাশ করার জন্য ধন্যবাদ।

1 লক্ষ 25 হাজার শিক্ষকদের ইন্টারভিউ এর তারিখ শীঘ্রই প্রকাশিত করতে পারে পর্ষদ।

রিজার্ভেশন রোস্টার মেনে তালিকা প্রকাশিত হয়নি। তাই এই ভুলের উত্তর কোর্টে দিতে হবে। এর থেকে ভালভাবেই দুর্নীতি প্রমাণ করা সম্ভব বলে জানিয়েছেন তিনি। পাশাপাশি টেট প্রার্থীদের মামলা দায়ের প্রসঙ্গে জানান, এতদিন জেলাভিত্তিক যে সকল টেট প্রার্থীরা কাট অফ মার্কসের থেকে বেশি নম্বর পেয়েছেন, তবুও চাকরি পাননি। তারাও এবার মামলা করবেন।
TET Recruitment সংক্রান্ত খবরের নতুন আপডেট সবার আগে পেতে হলে এই ওয়েবপোর্টালটি ফলো করতে ভুলবেন না।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

string(104) ""