প্রকল্প

রেশন তোলার নিয়মে বড় পরিবর্তন, আর লাগবে না আঙুলের ছাপ, বিশদে জানুন।

Adv

রেশন কার্ড ছাড়া পাওয়া যায় না খাদ্যশস্য। এমনকি কার্ডের তথ্যে ভুল থাকলেও কোনো গ্রাহক পান না দ্রব্য। দেশে রেশন তোলার ক্ষেত্রে মোট ৫ টি ক্যাটাগরীর কার্ড রয়েছে। অতিমারীর আবহে দেশে বিনামূল্যে দ্রব্য প্রদানের প্রকল্প চালু করা হয়েছিল। ৮০ কোটি সাধারণ মানুষ সেই প্রকল্পের অধীন রেশন পেয়ে থাকেন। বর্তমানে এই যোজনা চালু রয়েছে।

কি ভাবে রেশন তুলবেন?

তবে এই ব্যবস্থায় স্বচ্ছতা আনতে, আধার নম্বর নিশ্চিত করার জন্য বায়োমেট্রিক ব্যবস্থা চালু করা হয়েছিল। এবার সেই ব্যবস্থা বন্ধ হতে চলেছে। তার বদলে চালু করা হচ্ছে এই নয়া ব্যবস্থা। কতটা সুবিধা পেতে চলেছেন গ্রাহকেরা? এখন থেকে রেশন তুলতে গেলে আধার নম্বর নিশ্চিত করার জন্য লাগবে না আঙুলের ছাপ। তার বদলে গ্রাহকদের রেটিনা স্ক্যান করে দেওয়া হবে খাদ্যশস্য।

Ad

আমার বাংলা কার্ড চালু করলেন মমতা ব্যানার্জি, কি কি সুবিধা পাবেন জেনে নিন।

এর আগেই অবশ্য গ্রাহকদের এই ব্যবস্থা চালু করার ইঙ্গিত প্রদান করা হয়েছিল। সংবাদ মাধ্যম সূত্রে খবর, চলতি মাস নয়, বরং আগামী মাস থেকেই রাজ্যে রেটিনা স্ক্যান পদ্ধতি চালু করা হবে। তবে রাজ্যের সকল জেলাতে এখনই এই ব্যবস্থা চালু হচ্ছে না। এই পদ্ধতি চালু করার ক্ষেত্রে প্রথম রাজ্য হিসেবে পশ্চিমবঙ্গকে ধরা হয়েছে। তবে রাজ্যের সকল ডিলারের মধ্যে মোট ৫টি দোকানে চালু করার পরিকল্পনা করা হয়েছে।

কতটা সুবিধা হবে গ্রাহকদের?
নয়া ব্যবস্থা চালু হলে, বিশেষত প্রযুক্তি নির্ভর হলে তাতে ব্যবহারকারীদের প্রশিক্ষণের প্রয়োজন হয়। তাই এই নিয়ে ডিলারদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। তাছাড়া একটি বেসরকারি দায়িত্বপ্রাপ্ত সংস্থার তরফে মেশিন বসানো হবে এবং অন্যান্য সুযোগ সুবিধার বিষয়েও জানানো হবে।

আর গ্রাহকদের সুবিধা হল অনেকসময় একবার আঙলের ছাপ দিলে, তার সাহায্যে পাওয়া যায় না রেশন। অর্থাৎ সমস্যা দেখা যায়। ফলে আবারও ছাপ দিতে হয়। সেই সমস্যা থাকবেন না। রেটিনা অর্থাৎ যন্ত্রের সাহায্যে চোখের মনি স্ক্যান করা হবে। তারপর পাওয়া যাবে বিভিন্ন দ্রব্য। ইতিমধ্যেই বেশ কয়েকটি রেশন দোকানকে মডেল দোকান হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে।

ধীরে ধীরে রাজ্যের সমস্ত রেশন দোকানেই এই ব্যবস্থা চালু হবে। এছাড়া যে বেসরকারি সংস্থাটি রেটিনা স্ক্যানিংয়ের মেশিন লাগাতে চলেছে, খাদ্যশস্যের উপরে নির্ধারিত কমিশন পাবে সেই সংস্থা। ডিলারদের মতে, এই ব্যবস্থা প্রযুক্তিনির্ভর। তাই প্রশিক্ষণের প্রয়োজন রয়েছে।

পশ্চিমবঙ্গে বদলে গেল রেশন তোলার নিয়ম, হাতের ছাপ লাগবে না, দোকানে যাওয়ার আগে জেনে নিন।

তবে গ্রাহকদের যাতে কোনো সমস্যায় না পড়তে হয়, তাও দেখা হবে। প্রায় ২১ হাজার এই দোকানে রেটিনা স্ক্যান মেশিন বসানোর জন্য উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।
এই সংক্রান্ত খবরের নতুন আপডেট সবার আগে পেতে হলে এই ওয়েবপোর্টালটি ফলো করতে ভুলবেন না।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

string(99) ""