পশ্চিমবঙ্গের খবর

Electricity Bill – পশ্চিমবঙ্গে বিদ্যুতের বিল দেওয়ার আগে সতর্ক হন, নইলে সমস্যায় পড়বেন।

Adv

রাজ্যে বিদ্যুতের বিল (Electricity Bill) দেওয়া নিয়ে এক সমস্যা বৃদ্ধি পেল। ফের সাইবার প্রতারনার শিকার এক ব্যক্তি। পশ্চিমবঙ্গ বিদ্যুত পর্ষদের (WBSEDCL) বিল মেটাতে গিয়ে সর্বসান্ত সেই ব্যক্তি। কেন বার বার এই জালিয়াতির শিকার হচ্ছে সাধারন মানুষ গুলো। এই প্রতিবেদন বিস্তারিত দেখুন। বর্তমান সময় যত দিন এগোচ্ছে গোটা দেশ সাথে ভারত ও ডিজিটাল হচ্ছে। মানুষ নিজেদের কাজকে আরো সহজ ও তাড়াতাড়ি করার জন্যে ডিজিটাল লেনদেনকে বেশি গুরুত্ব দিয়েছে।

WBSEDCL Electricity Bill Fraud Case.

আর এই (Electricity Bill) ডিজিটাল লেনদেনকে কিছু মানুষ হাতিয়ার বানিয়েছে আর ব্যাংক থেকে লক্ষ লক্ষ টাকা গায়েব করে দিচ্ছে। এমন ঘটনা আগেও ঘটেছে অনেকবার। তাই প্রত্যেকটি মানুষকে এই বিষয়ে সাবধানও করা হয় বারবার। কিন্তু সমাজে এমন কিছু মানুষ আছেন যারা এই অনলাইন লেনদেনে করতে গিয়ে তাদের নিজেদের অজান্তেই এমন কিছু ভুল করেন, যার ফলে খোয়াতে হয় তিল তিল করে জমানো সঞ্চিত অর্থ।

Ad

আর সাইবার আপরাধী এই ছোট ছোট ভুলকেই কাজে লাগিয়ে প্রতারণা চলিয়ে যাচ্ছে । কিন্তু তাও মানুষ ভুল করে যাচ্ছে। ঠিক এমনি একটি সাইবার প্রতারণ জালে জড়িয়ে পরেন এক ব্যক্তি। এই ঘটনা ঘটেছে দক্ষিন 24 পরগনা জেলার বজবজ এলাকায়। সেখানকার এক সঙ্গীত শিল্পীর রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকের শাখা থেকে Fixed Deposit এর সব টাকা গায়েব করে দেওয়া হয় Electricity Bill দেওয়ার সময়।

‘আপনার বাড়ির বিদ্যুত সংযোগ কেটে দেওয়া হবে। এই বলে একটি ফোন আসে এবং তাতে ভয় পেয়ে গিয়েছিলেন তিনি। তখন তিনি ফোনের ওপরে থাক ব্যক্তি যা যা বলছিল তাই একে একে মেনে চলছিলেন। অনলাইনে একটার পর একটা করে ধাপ এগোতেই জড়িয়ে পরেন প্রতারণার জালে। বকেয়া Electricity Bill অনলাইনে মেটাতে গিয়ে সংগীত শিল্পীর রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংক থেকে গায়েব প্রায় 9 লাখ টাকা।

তথ্য সংস্কৃতি দফতরের অস্থায়ী শিল্পী তথা গানের শিক্ষক কল্যাণ দাস বজবজ 2 নম্বর ব্লকের নোদখালী থানার অন্তর্গত রায়পুরের বাসিন্দা তিনি। কল্যান বাবু তার নিজের মা, স্ত্রী ও সন্তান কে নিয়ে থাকেন। বিভিন্ন করনের তার 3 মাসের Electricity Bill মেটাতে না পারার জন্য তাকে এক ব্যক্তি ফোন করেন এবং বকেয়া বিল মেটাতে না পড়লে বিদ্যুত সংযোগ কেটে দেওয়া হবে বলে জানায়।

সেই মতই পশ্চিমবঙ্গ বিদ্যুৎ পর্ষদের (WBSEDCL Electricity Bill) লোগো দেওয়া ওই নম্বরে যোগাযোগ করলে 5ই নভেম্বর কল্যাণ বাবুকে একটি অ্যাপ ডাউনলোড করতে বলা হয়। তারপর এক এক করে সব ধাপ পেরিয়ে যাওয়ার পর তাকে বিদ্যুত সংযোগ অক্ষুন্ন রাখার জন্যে তাকে বলা হয় “3 টাকা পে করুন এবং আপনার ফোন OTP যাবে সেটি আমাকে দিন।” সেই OTP ব্যক্তিকে শেয়ার করা মাত্রই তার ব্যাংক থেকে নিমিষের মধ্যে গায়েব হয়ে যায় টাকা।

আর এখানেই একটি বড় প্রশ্ন সেভিংস একাউন্টের টাকা গায়েব হলেও ব্যাংকের কোন নজর দাড়ির অভাবে এবং কল্যাণ বাবুর সম্মতি ছাড়াই ফিক্সড ডিপোজিট এর টাকাও গায়েব হয়? তবে ব্যাংকে গেলে কতৃপক্ষ তাকে জানায়, ‘আপনিই আপনার টাকা তুলে নেওয়ার অনুমতি ওই ব্যক্তিকে ওটিপি শেয়ার করার মাধ্যমে দিয়েছেন। শুধুমাত্র এই অজুহাতেই সাতগাছিয়ার বাখরাহাটের ওই রাষ্ট্রয়াত্ত শাখার ব্যাংক কর্তৃপক্ষ (Electricity Bill).

Gold Price Today (আজকে সোনার দাম)

নোদাখালী থানা কোন প্রকার অভিযোগ নিতে অস্বীকার করেন। তারপরই তিনি ডায়মন্ড হারবার পুলিশ জেলার সাইবার ক্রাইম থানায় অনলাইনের মাধ্যমে এই ব্যাংক প্রতারণার ঘটনার অভিযোগ 6ই নভেম্বর জানান। আর FIR দায়ের হয় 18 ই নভেম্বর। যদিও এখনো পর্যন্ত কোন টাকা তিনি পাননি বলে জানান তিনি। তদন্ত চালানো হচ্ছে বলে জানিয়ে ডায়মন্ড হারবার পুলিশ জেলায় সাইবার ক্রাইম থানা।

পশ্চিমবঙ্গের নয়া প্রকল্প। পশ্চিমবঙ্গের বাসিন্দা হলেই পাবেন নগদ 5000 টাকা। আজই এই নথি জমা করুন।

আর আপনারা Electricity Bill দেওয়ার আগে খুবই সতর্ক হয়ে তবেই নিজেদের বিদ্যুতের বিল ছুকিয়ে দেবেন। নইলে আপনাদের সারা জীবনের জমানো টাকা এক মিনিটের মধ্যে প্রতারকদের পকেটে চলে যাবে। এই Electricity Bill জমা দেওয়া সম্পর্কে আপনাদের মতামত নিচে কমেন্ট করে জানাবেন। এই ধরণের কোন সমস্যায় পরলে আপনারা তৎক্ষণাৎ নিজেদের ব্যাংকে গিয়ে যোগাযোগ করবেন।
Written by Ananya Chakraborty.

দ্রুত টাকা বাড়াতে হলে এবং অবসর বয়সে নিশ্চিন্তে কাটাতে হলে এই নিয়মে

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

string(95) ""