চাকরি

পশ্চিমবঙ্গে কেন্দ্রীয় হারে DA, বিরাট আপডেট। 18 মে, কাউন্ট ডাউন শুরু।

Adv

কেন্দ্রীয় হারে DA দিতে হবে, আগামী 18 মে সরকারি কর্মীদের বড়োসড় ধর্মঘটের প্রস্তুতি জোরদার!

পশ্চিমবঙ্গের সরকারি কর্মীরা বকেয়া DA (Dearness Allowance Salary Hike) এর দাবিতে আন্দোলন এখনও জারি রেখেছেন। সরকারি কর্মীরা আন্দোলন আরো জোরদার করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন। যার ফলে অনেক কর্মী অনশনের কারণে অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন। গত ১০ এপ্রিল থেকে দিল্লিতে দুদিনের জন্য ধর্ণা কর্মসূচিতেও অংশগ্রহণ করেছিলেন প্রায় ৫০০ জন সরকারি কর্মীরা। কর্মীদের একাংশের দাবি, আন্দোলন প্রায় ১০০ দিন পেরোলেও এখনও পর্যন্ত কোনো আশানুরূপ বার্তা মেলেনি সরকারের তরফে।

প্রসঙ্গত গত ৬ মে তেও রাজ্য সরকারি কর্মীদের বিরাট মিছিল হয়েছিল। তবে এই অবস্থা কেবলমাত্র এ রাজ্যে নয়। উত্তরপ্রদেশেও রাজ্য সরকারি কর্মীরা DA এর দাবিতে ধর্মঘট করতে চলেছেন। সংবাদ মাধ্যম সূত্রে খবর, আগামী ১৮ মে তাদের ধর্মঘট বিরাট আকার ধারণ করতে চলেছে।
সংবাদ মাধ্যম সূত্রে খবর, উত্তরপ্রদেশের সরকারি সড়ক পরিবহন, প্রাথমিক শিক্ষক, পুরসভার কর্মী সহ একাধিক সংগঠন এই ধর্মঘটে যোগদান করতে চলেছে।

Ad

প্রায় ১০ লক্ষ কর্মী অংশগ্রহন করতে চলেছে এই ধর্মঘটে। তাই মনে করা হচ্ছে, আগামী দিনে বিরাট আকার নিতে চলেছে এই ধর্মঘট।
কর্মীদের প্রধান দাবি হল পুরনো পেনশন প্রকল্প চালু করা। পাশাপাশি আরো বেশ কয়েকটি দাবির কথা জানা গিয়েছে। সেগুলি হলো সাধারণ জনগণের উদ্দেশ্যে যে সকল পরিষেবা দেওয়া হয়, তার বেসরকারিকরণ। এছাড়া ঠিকা কর্মীদের নিয়োগ বন্ধ করার দাবি জানানো হয়েছে৷ সঙ্গে রাজ্যে বেতন কমিশনের সুপারিশ শীঘ্রই চালু করার দাবিও জানাবেন তারা।

ইতিমধ্যেই রাজ্যের বিভিন্ন ব্লক এবং জেলায় জেলাগুলিতে এই নিয়ে প্রচার শুরু হয়ে গিয়েছে।
সংবাদ মাধ্যম সূত্রে খবর, উত্তরপ্রদেশের সরকারি সড়ক পরিবহন, প্রাথমিক শিক্ষক, পুরসভার কর্মী সহ একাধিক সংগঠন পশ্চিমবঙ্গের এই ধর্মঘটে যোগদান করতে চলেছে। প্রায় ১০ লক্ষ কর্মী অংশগ্রহন করতে চলেছে এই ধর্মঘটে। তাই মনে করা হচ্ছে, আগামী দিনে বিরাট আকার নিতে চলেছে এই ধর্মঘট।

মোচা ঘূর্ণিঝড় আরও ভয়ঙ্কর রূপ নিলো, দুই শত্রুর আগমনে কপাল খারাপ বাংলার।

কর্মীদের প্রধান দাবি হল পুরনো পেনশন প্রকল্প চালু করা। পাশাপাশি আরো বেশ কয়েকটি দাবির কথা জানা গিয়েছে। সেগুলি হলো সাধারণ জনগণের উদ্দেশ্যে যে সকল পরিষেবা দেওয়া হয়, তার বেসরকারিকরণ। এছাড়া ঠিকা কর্মীদের নিয়োগ বন্ধ করার দাবি জানানো হয়েছে৷ সঙ্গে রাজ্যে বেতন কমিশনের সুপারিশ শীঘ্রই চালু করার দাবিও জানাবেন তারা।
ইতিমধ্যেই রাজ্যের বিভিন্ন ব্লক এবং জেলায় জেলাগুলিতে এই নিয়ে প্রচার শুরু হয়ে গিয়েছে।

DA এ নিয়ে কী দাবি জানানো হবে?
উত্তরপ্রদেশ রাজ্যে গত ৫ বছর ধরে বেতন বৃদ্ধি হচ্ছে না, এছাড়া হচ্ছে না বা পদন্নতিও, দাবি রাজ্যের সড়ক পরিবহন শ্রমিক-কর্মী থেকে শুরু করে শিক্ষকদের।
পাশাপাশি রাজ্য সরকারি কর্মীদের ফেডারেশনের দাবি, কেন্দ্রীয় হারে ডিএ দিতে হবে।
বর্তমানে বকেয়া ডিএ এর দাবির পাশাপাশি এই দাবিতেও আন্দোলন জারি রেখেছেন পশ্চিমবঙ্গের সরকারি কর্মচারীরাও।

সৎপথে মাত্র 1000 টাকা বিনিয়োগে পাবেন নিশ্চিত কোটি টাকা রিটার্ন, কিভাবে? জেনে নিন।

কিন্তু তাদের দাবি এখনও পর্যন্ত মেনে নেওয়া হয়নি, বলে মত কর্মীদের।
ডিএ মেটানো নিয়ে সম্প্রতি রাজ্যের কৃষিমন্ত্রী শোভনদেব চট্টোপাধ্যায় উত্তর ২৪ পরগনার খড়দহের পাতুলিয়া পঞ্চায়েত এলাকায় ‘দিদির সুরক্ষা কবচ’ কর্মসূচিতে যোগদান করতে এসে বলেন, DA দিতে গেলে লক্ষ্মীর ভান্ডার, স্বাস্থ্যসাথীর কার্ড, কন্যাশ্রীর মতো রাজ্যের একাধিক সামাজিক প্রকল্প বন্ধ হয়ে যাবে।
রাজ্য সরকারি কর্মীরা কবে পাবেন বকেয়া ডিএ? সেই উত্তর এখনও জানা নেই।
এই সংক্রান্ত খবরের নতুন আপডেট সবার আগে পেতে হলে এই ওয়েবপোর্টালটি ফলো করতে ভুলবেন না।
Written by Manika Basak.

Related Articles

One Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

string(95) ""